আজ, মঙ্গলবার


২৫শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম
শিরোনাম

বগুড়ায় এনআরবিসি ব্যাংকের সিন্দুক ভেঙে টাকা চুরি

শনিবার, ২৭ জানুয়ারি ২০২৪
বগুড়ায় এনআরবিসি ব্যাংকের সিন্দুক ভেঙে টাকা চুরি
সংবাদটি শেয়ার করুন....

গণবার্তা রিপোর্ট: বগুড়ায় এনআরবিসি ব্যাংকের একটি উপশাখায় সিন্দুক ভেঙে ১০ লাখ টাকা চুরির অভিযোগ উঠেছে।

শুক্রবার (২৬ জানুয়ারি) রাতে বগুড়া সদরের পল্লীমঙ্গল বন্দরে এনআরবিসি ব্যাংকের উপশাখায় এ চুরির ঘটনা ঘটে।

ব্যাংকের শাখা ব্যবস্থাপক রাশেদুল ইসলাম জানান, পল্লীমঙ্গল হাট সংলগ্ন জনৈক আব্দুর রাজ্জাকের বাড়ির নিচতলায় দুই কক্ষ ভাড়া নিয়ে এনআরবিসি ব্যাংকের উপশাখার কার্যক্রম চলছিল। ব্যাংকে তিনজন কর্মকর্তা-কর্মচারী কর্মরত ছিলেন। এই শাখায় কোন নৈশ প্রহরী ছিল না।

বৃহস্পতিবার (২৫ জানুয়ারি) লেনদেন শেষে ব্যাংকের সিন্দুকে ৯ লাখ ৭৮ হাজার ৬১৪ টাকা রেখে চলে যান।

এরপর শনিবার (২৭ জানুয়ারি) ভোরে বাড়ির মালিক ফোন করে ব্যাংকে চুরির ঘটনাটি জানান। খবর পেয়ে তিনি নাটোর গ্রামের বাড়ি থেকে বগুড়ায় এসে টাকা খোয়া যাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হন।

এদিকে সরজমিনে ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা গেছে, আব্দুর রাজ্জাকের দোতলা বাড়ির নিচতলায় এসকেএস ফাউন্ডেশন নামের একটি এনজিওর অফিস রয়েছে। সেখানে অফিস কর্মীদের আবাসিক ব্যবস্থা রয়েছে। সিড়ি ঘরের পার্শ্বে দুইটি কক্ষে ব্যাংকের উপ শাখার কার্যক্রম চলে। বাড়ির মালিক আব্দুর রজ্জাকের দেখানো অনুয়ায়ী দোতলার ছাদে সিঁড়ি ঘরের দরজা সংলগ্ন দেয়ালের দুই লাইন ইট খুলে চোরের দল প্রবেশ করে। এরপর নিচতলায় সিঁড়ি ঘর সংলগ্ন ব্যাংকের প্রবেশের দরজার তালা লাগানো ক্লাম কেটে ভিতরে প্রবেশ করে।

ঘটনাস্থল পরির্দশনকারী একাধিক পুলিশ কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে চুরির ঘটনাকে রহস্যজনক বলে মনে করছেন। তাদের মতে সিঁড়ি ঘরের ইট খুলে সাত ইঞ্চি ফাঁকা জায়গা দিয়ে ভিতরে একজন মানুষ প্রবেশ করা সম্ভব না। এছাড়াও ব্যাংকের ভিতরে সিসিটিভি ক্যামের থাকলেও তার সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা ছিল।

পল্লী মঙ্গল বাজারে রাতের নিরাপত্তায় চারজন নৈশ প্রহরী দায়িত্ব পালন করেন তাদের একজন ঠান্ডু মিয়া বলেন, চারজনই সারারাত দায়িত্ব পালন করেছেন। রাতে এলাকায় সন্দেহজনক কাউকে ঘোরা ফেরা করতে দেখেন নি।

ঘটনাস্থল পরিদর্শনের পর বগুড়ার পুলিশ সুপার সুদীপ কুমার চক্রবর্তী বলেন, প্রাথমিকভাবে ব্যাংকের শাখায় চুরির ঘটনা ঘটেছে বলে প্রতীয়মান হয়েছে। জড়িতদের শনাক্ত এবং গ্রেফতার করতে পুলিশের একাধিক টিম কাজ শুরু করেছে। প্রযুক্তিগত সহায়তা বিভিন্ন বিষয় বিশ্লেষণ করে কাজ চলছে।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৭:৪৬ পূর্বাহ্ণ | শনিবার, ২৭ জানুয়ারি ২০২৪

দৈনিক গণবার্তা |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সম্পাদকঃ শাহিন হোসেন

বিপিএল ভবন (৩য় তলা ) ৮৯, আরামবাগ, মতিঝিল, ঢাকা ।

মোবাইল : ০১৭১৫১১২৯৫৬ ।

ফোন: ০২-২২৪৪০০১৭৪ ।

ই-মেইল: ganobartabd@gmail.com