বৃহস্পতিবার, ৯ ডিসেম্বর ২০২১, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, বিকাল ৪:১৩

সোনিয়া গান্ধীই কংগ্রেস সভানেত্রী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : কংগ্রেস সভানেত্রী পদে আরও কয়েক মাসের জন্য থাকবেন সোনিয়া গান্ধী। তবে তাকে দৈনন্দিন কাজে সহায়তার জন্য একটি কমিটি গঠন করা হবে বলে কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠকে স্থির হয়েছে। অভ্যন্তরীণ সংকটের মধ্যে সোমবার ২৫ আগস্ট বেলা ১১টায় পরবর্তী দলীয় সভাপতি বেছে নেওয়ার জন্য বৈঠকে বসেছিল ওয়ার্কিং কমিটি।

তবে সু-নেতৃত্বের অভাব এবং দলের সাংগঠনিক সমস্যা তুলে ধরে চিঠি পাঠানো দলের ২৩ জন শীর্ষ নবীন-প্রবীণ নেতাকে তীব্র আক্রমণ করেছেন প্রাক্তন সভাপতি ও সোনিয়া পুত্র রাহুল গান্ধী। তার মন্তব্য, তাদের অনেকের সঙ্গেই বিজেপির যোগ রয়েছে।

চিঠি লেখা নেতাদের উদ্দেশ্যে প্রাক্তন সভাপতির আরও তোপ ছিল, সোনিয়া গান্ধী অসুস্থ থাকার সময় ওই চিঠি পাঠানো হয়েছিল। রাহুলের মন্তব্যের তীব্র বিরোধিতা করেন গুলাম নবি আজাদ এবং কপিল সিব্বল।

খবর, রাহুলের মন্তব্যকে চ্যালেঞ্জ করে বি জে পি যোগ প্রমাণিত হলে রাজনীতি ছেড়ে দেওয়ার কথা বলেছেন রাজ্যসভায় কংগ্রেসের নেতা গুলাম নবি আজাদ। আরও এক বর্ষীয়ান কংগ্রেস নেতা ও আইনজীবী কপিল সিব্বল বলেছেন,রাহুল গান্ধী বলেছেন বিজেপির সঙ্গে আঁতাত রয়েছে। এটা এতদিন পরে মানা সম্ভব নয়। সব মিলিয়ে কংগ্রেসের নেতৃত্ব গান্ধী পরিবারের হাতেই রইলো।

পত্রবোমা’র অভিঘাতে নতুন সভাপতির সন্ধানে সোমবার জরুরি বৈঠকে বসেছিল কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটি। এই বৈঠক শতাব্দী প্রাচীন দলের অভ্যন্তরীণ ফাটল আরও প্রকট হয়ে উঠলেও আসল কাজ করতে ব্যর্থ হয়েছেন কংগ্রেসের ম্যানেজাররা। দীর্ঘ জল্পনা, শোরগোল আর নাটকের পরেও দলের নতুন সভাপতিকে বেছে নিতে পারলেন না তারা। এই পরিস্থিতিতে স্থিতাবস্থা বজায় রেখে আপাতত ড্যামেজ কন্ট্রোলে কংগ্রেস হাইকমান্ড।

সংবাদটি শেয়ার করুন...

Developed by: Engineer BD Network