বুধবার, ৮ ডিসেম্বর ২০২১, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, সকাল ১০:২৭

যে ৫টি খাবার শরীরে ভালো কোলেস্টেরল বাড়ায়

লাইফস্টাইল ডেস্ক ॥ আমরা রোলেস্টেরল শব্দটি শুনলেই মনে করি স্বাস্থ্যের জন্য খারাপ। তবে জানা জরুরি, সব ধরনের কোলেস্টেরল স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর নয়।

ভালো ধরনের কোলেস্টেরল আছে, যা আমাদের শরীরের জন্য প্রয়োজন। উচ্চ ঘনত্বের লাইপোপ্রোটিন (এইচডিএল) হলো ভালো কোলেস্টেরল যা আমাদের শরীরে অনেক বেশি প্রয়োজন। এটি হলো লো-ডেনসিটির লাইপোপ্রোটিন (এলডিএল), যা সম্পর্কে আরও সচেতন হওয়া উচিত। উচ্চ এইচডিএলে অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট প্রভাব রয়েছে। এটি হৃদরোগের ঝুঁকি কমিয়ে দেয়। শরীরে এইচডিএল স্তর বাড়ানোর জন্য এই খাবারগুলো খেতে হবে নিয়মিত-

চর্বিযুক্ত মাছ : ফ্যাটি ফিশে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ওমেগা৩ ফ্যাট যা প্রদাহ হ্রাস করতে এবং ধমনীর কোষের আস্তরণের কার্যকারিতা উন্নত করতে সাহায্য করে। গবেষণায় দেখা গেছে যে, চর্বিযুক্ত মাছ খেলে বা মাছের তেলের সাপ্লিমেন্ট গ্রহণ করলে তা এইচডিএল কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়িয়ে তুলতে পারে। ফ্যাটযুক্ত মাছের মধ্যে রয়েছে স্যামন, সার্ডাইনস, ম্যাকারেল এবং অ্যাঙ্কোভি।

মটরশুটি : মটরশুটি ফাইবারসমৃদ্ধ একটি খাবার। এটি স্বাস্থ্যকর পুষ্টির একটি সমৃদ্ধ উৎস। এতে ফোলেটও রয়েছে যা হৃদযন্ত্রকে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে। মটরশুটি ও শীমের বিচি এইচডিএল কোলেস্টেরলের মাত্রা উন্নত করতে উপকারী বলে প্রমাণিত হয়েছে।

অলিভ অয়েল : অলিভ অয়েলে হৃদযন্ত্রের জন্য উপকারী স্বাস্থ্যকর ফ্যাট থাকে। এই ফ্যাট এলডিএল এর কারণে শরীরে প্রদাহ কমিয়ে আনতে পারে। গবেষণায় দেখা গেছে যে জলপাই তেল হৃদযন্ত্রকে ভালো রাখে। এটি প্রতিদিনের খাবারে রাখা উচিত। রান্নার কাজে এক্সট্রা ভার্জিন অলিভ অয়েল ব্যবহার করুন। এতে শরীরে এইচডিএল এর পরিমাণ বাড়াবে। তবে উচ্চ তাপমাত্রায় এক্সট্রা ভার্জিন অলিভ অয়েল দিয়ে রান্না করবেন না।

তিসি : ওমেগা-৩ ফ্যাটি অ্যাসিড, ফাইবার এবং পুষ্টিতে ভরা তিসি এলডিএল কোলেস্টেরলের মাত্রা হ্রাস করে। এটি রক্তচাপকে নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করতে পারে। তিসি বিভিন্ন উপায়ে খাওয়া যায়। যেমন এটি স্মুদি, সিরিয়াল, দই বা ওটমিলের সঙ্গে মিশিয়ে খেতে পারেন।

বেগুনি রঙের খাবার: বেগুনি রঙের ফল এবং শাক-সবজি এইচডিএল কোলেস্টেরলের পরিমাণ বাড়ানোর কারণে স্বাস্থ্যের জন্যও ভালো বলে বিবেচিত হয়। বেগুনি রঙের খাবারগুলোতে অ্যান্টোসায়ানিনস নামে পরিচিত অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট থাকে, যা প্রদাহের বিরুদ্ধে লড়াই করতে পারে এবং ফ্রি র‌্যাডিক্যালগুলোর কারণে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়া কোষগুলো থেকে ভালো কোষকে রক্ষা করতে পারে। ভালো কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়ানোর জন্য আপনার খাবারের তালিকায় বেগুন, লাল বাঁধাকপি, ব্লুবেরি, ব্ল্যাকবেরি এবং কালো রাস্পবেরি রাখুন।

সংবাদটি শেয়ার করুন...

Developed by: Engineer BD Network