রবিবার, ১১ এপ্রিল ২০২১, ২৮ চৈত্র ১৪২৭, সকাল ৮:১৬
শিরোনাম :
মুলাদীতে থানা পুলিশের উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ শিশুদের জীবনকে আলোকিত ও সুন্দর হিসেবে গড়ে তুলুন : প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও কর্ম থেকে রাজনীতিবিদদের শিক্ষা নেয়ার আহ্বান রাষ্ট্রপতির বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উপলক্ষে দশ দিনের কর্মসূচি আজ থেকে শুরু মুলাদীতে শিশুদের জন্য ব্যতিক্রম কর্মসূচি ‘রং তুলিতে বঙ্গবন্ধু’ বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ স্বাধীনতা সংগ্রামের বীজমন্ত্র ৭ই মার্চের ভাষণে নিরস্ত্র বাঙালি সশস্ত্র বাঙালিতে পরিণত হয়েছিলো: তথ্য মন্ত্রী করোনা মোকাবিলায় শীর্ষ তিনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকার দক্ষ জনশক্তি গড়ে তুলতে শিক্ষাকে বহুমাত্রিক করতে কাজ করছে : প্রধানমন্ত্রী গবেষণা ও বিজ্ঞানের বিবর্তন দেশের উন্নয়নে অপরিহার্য : প্রধানমন্ত্রী

তিন মিটার ওপরে ভাঁজ করে রাখা হল কাবার গিলাফ

গণবার্তা ডেস্ক ॥ পবিত্র হজ উপলক্ষে কাবা শরিফের গিলাফ তিন মিটার ওপরে ভাঁজ করে রেখেছে সৌদির হজ ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ। ভাঁজ করা অংশটুকু সাদা কাপড় দিয়ে ঢেকে দেয়া হয়েছে।

৯ জিলহজ আরাফার দিন (হজের দিন) পুরোনো এই গিলাফটি পরিবর্তন করে নতুন গিলাফ লাগানো হবে। হজের সূচনা থেকেই এমনটি করা হয়ে থাকে বলে হারামাইন কর্তৃপক্ষের বরাতে আল আরাবিয়া জানিয়েছে।

সংবাদমাধ্যমটি জানিয়েছে, কিসওয়া তথা গিলাফের সংরক্ষণ এবং কাবার পরিচ্ছন্নতা রক্ষার্থেই এমনটি করা হয়ে থাকে। কারণ, তাওয়াফ করার সময় হাজীরা কাবা শরিফ স্পর্শ করার চেষ্টা করেন এবং বরকত মনে করে কেউ কেউ গিলাফ কেটে নিতে চান। যদিও ইসলামে এমন কোনো কথা বলা নেই।

তবে, এ বছর হজযাত্রীদের স্বাস্থ্য সুরক্ষার জন্য বিকল্প ব্যবস্থা হিসেবে বায়তুল্লাহর চারপাশে ব্যারিকেড দেয়া হয়েছে। তাওয়াফকারীরা এই ব্যারিকেড অতিক্রম করতে পারবেন না।

সৌদি আরবের জাতীয় রোগ নিয়ন্ত্রণ কেন্দ্রের দিকনির্দেশনায় এবার হজে কাবার গিলাফ স্পর্শ করা, সেই সঙ্গে হাজরে আসওয়াদ চুম্বন করা থেকে হজযাত্রীদের বিরত রাখা হবে।

মসজিদে হারাম ও মসজিদে নববির মহা ব্যবস্থাপক ড. আবদুর রহমান আস-সুদাইস, নিজে এ কাজগুলো দেখাশোনা করছেন। কাবার গিলাফ পরিবর্তন এবং এর আশপাশ পরিচর্যার জন্য ৫০ জন দক্ষ কর্মীকে নিয়োগ দিয়েছেন তিনি।

প্রসঙ্গত, বৈশ্বিক মহামারী করোনার সংক্রমণ ও বিস্তার রোধে এবছর হজ করতে ইচ্ছুক এমন ১০ হাজার হজযাত্রীদেরকে সৌদি আরবে হোম কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে। ৩ জিলহজ মক্কায় এসে আরও চারদিন কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে তাদের।

৮ জিলহজ ফজরের পর মুসল্লিরা রওয়ানা হবেন মিনায়। এর মাধ্যমে শুরু হবে হজের মূল আনুষ্ঠানিকতা। ১২ জিলহজ পর্যন্ত, মিনা, মুজদালিফা, আরাফার ময়দান ও মক্কায় হজের বিভিন্ন আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করবেন মুসল্লিরা।

Developed by: NEXTZEN LIMITED